নতুন জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করার জন্য নির্দেশিকা

নতুন জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করার জন্য, আপনাকে অবশ্যই সমস্ত প্রয়োজনীয় বিবরণ প্রদান করে অনলাইন আবেদন ফর্মটি পূরণ করতে হবে। পরবর্তীকালে, আবেদনপত্রটি জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধকের সংশ্লিষ্ট অফিসে জমা দিতে হবে।

Applying for New Birth Registration

অনলাইনে নতুন জন্ম নিবন্ধন আবেদনপত্র পূরণ করার প্রক্রিয়াটি আবিষ্কার করুন: প্রয়োজনীয় নথিপত্র, ফর্ম পূরণের নির্দেশিকা এবং আবেদনের ফি

একটি নতুন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র পাওয়ার জন্য একটি বিস্তৃত নির্দেশিকা: অনলাইন আবেদন ফর্ম (জন্ম নিবন্ধন আবেদন ফর্ম) ধাপে ধাপে নির্দেশাবলী এবং ভিজ্যুয়ালগুলির সাথে সচিত্র প্রয়োজনীয়তা পূরণ করা

দয়া করে মনে রাখবেন যে একটি হাতে লেখা ফর্ম পূরণ করে একটি নতুন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্রের জন্য আবেদন করার ঐতিহ্যগত পদ্ধতি আর উপলব্ধ নেই৷ হালনাগাদ পদ্ধতির জন্য অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন ফর্ম পূরণ করা আবশ্যক।

Table of Contents

নতুন জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন

একটি শিশুর জন্মের 45 দিনের মধ্যে তার জন্ম নিবন্ধন করা বাধ্যতামূলক। আপনি যদি 45 দিনের মধ্যে জন্ম নিবন্ধন করতে অক্ষম হন তবে আপনি শিশুর বয়সের 5 বছরের মধ্যে এটি নিবন্ধন করতে পারেন। যাইহোক, কিছু অতিরিক্ত নথি আছে যেগুলি আপনাকে প্রদান করতে হবে যদি আপনি 45 দিন পরে জন্ম নিবন্ধন করেন। এই নথি অন্তর্ভুক্ত হতে পারে:

একটি জন্ম নিবন্ধন করতে কি লাগে?

জন্ম নিবন্ধনের জন্য প্রয়োজনীয় নথিগুলি শিশুর বয়সের উপর নির্ভর করে পরিবর্তিত হতে পারে। এখানে বিভিন্ন বয়স বিভাগের উপর ভিত্তি করে প্রয়োজনীয় নথিগুলির একটি ভাঙ্গন রয়েছে:

বয়স: 0 থেকে 45 দিন

  1. ইপিআই (ইমিউনাইজেশন) কার্ড বা হাসপাতাল ক্লিয়ারেন্স
  2. বাড়ির হোল্ডিং নম্বর এবং হোল্ডিং ট্যাক্স রসিদ
  3. আবেদনকারী পিতামাতার মোবাইল নম্বর
  4. পিতা ও মাতার অনলাইন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্রের অনুলিপি (যদি থাকে)
  5. পিতা ও মাতার ভোটার আইডি কার্ডের কপি (যদি থাকে)

বয়স: 46 দিন থেকে 5 বছর

  1. ইপিআই (ইমিউনাইজেশন) কার্ড/স্বাস্থ্যকর্মীর স্বাক্ষর ও সীলমোহর সহ সার্টিফিকেট
  2. পিতা ও মাতার ভোটার আইডি কার্ডের কপি (যদি থাকে)
  3. পিতা ও মাতার অনলাইন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্রের অনুলিপি (যদি থাকে)
  4. স্বাক্ষর এবং সিল সহ স্কুলের প্রধান শিক্ষকের শংসাপত্র (প্রযোজ্য হলে)
  5. আবেদনকারী পিতামাতার মোবাইল নম্বর
  6. বাড়ির হোল্ডিং নম্বর এবং হোল্ডিং ট্যাক্স রসিদ
  7. জনমো নিবন্ধন রূপ
  8. অনলাইন আবেদনপত্র জমা দেওয়ার সময় আবেদনকারীর পাসপোর্ট সাইজের 1 কপি রঙিন ছবি।

বয়স: 5 বছরের বেশি

  1. প্রাথমিক শিক্ষা সমাপ্তি, সরকার কর্তৃক পরিচালিত জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট, বা শিক্ষা বোর্ড কর্তৃক পরিচালিত মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট
  2. বয়স প্রমাণের জন্য ডাক্তারের কাছ থেকে সার্টিফিকেট (এমবিবিএস বা তার বেশি ডিগ্রি সহ মেডিকেল)
  3. পিতা ও মাতার অনলাইন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্রের অনুলিপি (যদি থাকে)
  4. বাবা ও মায়ের ভোটার আইডি কার্ড
  5. জন্মস্থান বা স্থায়ী ঠিকানার প্রমাণের জন্য পিতা/মাতা/দাদি-দাদী কর্তৃক ঘোষিত বাসস্থানের বিপরীতে আপ-টু-ডেট ট্যাক্স পেমেন্ট রসিদ বা জমি/বাড়ি
  6. ক্রয়ের দলিল, ভাড়া এবং কর প্রদানের রসিদ ইত্যাদির কপি। .
  7. অন্য কোনো কারণে আবেদনকারীর স্থায়ী ঠিকানা গায়েব হয়ে গেলে

এই প্রয়োজনীয়তাগুলি নির্দিষ্ট এখতিয়ার এবং এর প্রবিধানের উপর ভিত্তি করে পরিবর্তিত হতে পারে। জন্ম নিবন্ধনের জন্য প্রয়োজনীয় নথিগুলির সবচেয়ে সঠিক এবং আপ-টু-ডেট তথ্যের জন্য প্রাসঙ্গিক সরকারি কর্তৃপক্ষ বা আইনি সংস্থানগুলির সাথে পরামর্শ করা অপরিহার্য।

অনলাইন জন্ম নিবন্ধন আবেদনপত্র কীভাবে পূরণ করবেন

আমি অনলাইনে জন্ম নিবন্ধনের জন্য কীভাবে আবেদন করতে হয় সে সম্পর্কে ব্যাপক তথ্য প্রদান করেছি, কারণ অনেক লোক প্রক্রিয়াটির সাথে পরিচিত নাও হতে পারে। অনুগ্রহ করে মনে রাখবেন যে জন্ম নিবন্ধন আবেদনটি বর্তমানে পূর্ববর্তী ওয়েবসাইটে অনুপলব্ধ। যাইহোক, আমি জন্ম নিবন্ধন সমুদের নতুন অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে আবেদন প্রক্রিয়া শেয়ার করেছি।

জন্ম নিবন্ধনের জন্য নতুন লিঙ্ক – https://bdris.gov.bd

অনলাইন জন্ম নিবন্ধন আবেদন ফর্মটি পূরণ করতে, নীচে বর্ণিত ধাপগুলি অনুসরণ করুন:

অনলাইন আবেদন প্রক্রিয়া শুরু করতে, আপনার মোবাইল ডিভাইস বা কম্পিউটার ব্যবহার করে bdris.gov.bd ওয়েবসাইট অ্যাক্সেস করে শুরু করুন। একবার আপনি ওয়েবসাইটে অবতরণ করলে, আপনাকে নীচের চিত্রের মতো একটি পৃষ্ঠা উপস্থাপন করা হবে।

Process

পছন্দের ঠিকানা বেছে নিন যেখানে আপনি জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র পেতে চান।

Address

প্রদত্ত বিকল্পগুলিতে, ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা বা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন করুন যেখান থেকে আপনি শিশু বা ব্যক্তির জন্য একটি নতুন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র পেতে চান। উপযুক্ত বিকল্পটি নির্বাচন করার পরে, এগিয়ে যেতে “পরবর্তী” বোতামে ক্লিক করুন।

নাম দুটি অংশ নিয়ে গঠিত হলে, নাম বিভাগের প্রথম ঘরে প্রথম অংশ এবং নাম বিভাগের শেষ কক্ষে দ্বিতীয় অংশ লিখুন। তিনটি অংশ বিশিষ্ট নামের ক্ষেত্রে, নাম বিভাগের প্রথম ঘরে প্রথম এবং দ্বিতীয় অংশ লিখুন এবং নামের শেষ অংশের জন্য নির্ধারিত শেষ কক্ষে নামের শেষ অংশ লিখুন।

নামটিতে একটি শব্দ থাকলে, প্রথম অংশটি খালি রাখুন এবং শেষ অংশ বিভাগে পুরো নামটি লিখুন। একইভাবে, সংশ্লিষ্ট ইংরেজি নামটি পূরণ করুন। একবার আপনি সঠিকভাবে সমস্ত প্রয়োজনীয় বিবরণ পূরণ করলে, এগিয়ে যেতে ডানদিকে অবস্থিত “পরবর্তী” বোতামে ক্লিক করুন।

বাবা এবং মায়ের বিবরণ লিখুন

এই বিভাগে, আপনাকে অনলাইন জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র নম্বর নির্বাচন করতে হবে এবং নিবন্ধিত শিশু/ব্যক্তির পিতা ও মাতার জাতীয়তা উল্লেখ করতে হবে।

Number

একবার আপনি পিতামাতার ডিজিটাল জন্ম নিবন্ধন নম্বর প্রবেশ করালে, সিস্টেম স্বয়ংক্রিয়ভাবে তাদের নাম প্রদর্শন করবে। এটি লক্ষ করা গুরুত্বপূর্ণ যে এই নামগুলি সম্পাদনা বা পরিবর্তন করা যাবে না, এমনকি যদি আপনি পরিবর্তন করতে চান।

জন্ম নিবন্ধন আবেদনপত্র ডাউনলোড এবং প্রিন্ট করুন

সফলভাবে জন্ম নিবন্ধন আবেদন জমা দেওয়ার পরে, আপনাকে জন্ম নিবন্ধন আবেদনপত্র প্রিন্ট করার বিকল্প দেওয়া হবে। আবেদনপত্রের একটি অনুলিপি প্রিন্ট করে সংশ্লিষ্ট মিউনিসিপ্যাল/ইউনিয়ন পরিষদ বা সিটি কর্পোরেশন অফিসে নির্দেশ অনুযায়ী জমা দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

আবেদনপত্র প্রিন্ট করার সময়, শিরোনাম এবং পাদচরণ তথ্যে মনোযোগ দেওয়া অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। শিরোনাম বিভাগে আপনার আবেদনের অ্যাপ্লিকেশন আইডি থাকবে। এই তথ্য উপেক্ষা করা অপরিহার্য, কারণ অ্যাপ্লিকেশন আইডি হারানো ভবিষ্যতে অসুবিধা তৈরি করতে পারে।

অ্যাপ্লিকেশন আইডি ছাড়া, আপনার জন্ম নিবন্ধন আবেদন ট্র্যাক করা যাবে না। অতএব, নিশ্চিত করুন যে জন্ম নিবন্ধন আবেদনপত্রের মুদ্রিত কপিতে এটি রয়েছে।

This

অ্যাপ্লিকেশনটি প্রিন্ট করার সময়, “প্রিন্ট” বিকল্প থেকে “আরো সেটিংস” এ ক্লিক করুন। তারপরে, “হেডার এবং ফুটার” বিকল্পটি চেক করুন এবং মুদ্রণ করুন। আবেদনের সাথে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা দিন।

জন্ম নিবন্ধন আবেদন বাতিল করার নিয়ম

জন্ম নিবন্ধন আবেদন বাতিল করতে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা বা সিটি কর্পোরেশন অফিসে যোগাযোগ করুন। আপনার অ্যাপ্লিকেশন আইডি এবং আবেদনপত্রের একটি প্রিন্টআউট আনুন। ব্যাখ্যা করুন যে আপনি আপনার আবেদন বাতিল করতে চান এবং এটি করার জন্য একটি ভাল কারণ প্রদান করুন।

অনুগ্রহ করে মনে রাখবেন যে আপনার আবেদন জমা দেওয়ার 15 দিনের মধ্যে ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা/সিটি কর্পোরেশন অফিসে প্রয়োজনীয় নথিপত্র এবং আবেদনপত্র জমা দিতে ব্যর্থ হলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে বাতিল হয়ে যাবে। অতএব, আপনার আবেদন বাতিল হওয়া এড়াতে সমস্ত প্রয়োজনীয় উপকরণ সময়মত জমা দেওয়া নিশ্চিত করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

একটি জন্ম নিবন্ধন আবেদন বাতিল করা শুরু করতে, অনুগ্রহ করে নীচের পদক্ষেপগুলি অনুসরণ করুন:

  • সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা/সিটি কর্পোরেশনের যথাযথ অফিসে যোগাযোগ করুন।
  • আবেদনপত্রের আইডি এবং আবেদনপত্রের একটি মুদ্রিত কপি সঙ্গে আনুন।
  • আপনার আবেদন বাতিল করার উদ্দেশ্য সম্পর্কে অফিসের কর্মীদের অবহিত করুন।
  • বাতিলের অনুরোধের জন্য বৈধ এবং বিশ্বাসযোগ্য কারণ প্রদান করুন।
  • অফিস আপনার অনুরোধ এবং সমর্থনকারী ডকুমেন্টেশন পর্যালোচনা করবে এর বৈধতা মূল্যায়ন করতে।
  • বাতিল অনুমোদন হলে, আবেদন বাতিলের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
  • নিশ্চিত করুন যে আপনি বাতিলকরণের জন্য অফিস দ্বারা নির্দিষ্ট কোনো অতিরিক্ত প্রয়োজনীয়তা বা পদ্ধতি মেনে চলেন।
  • অনুগ্রহ করে মনে রাখবেন যে প্রাথমিক আবেদন প্রক্রিয়া চলাকালীন প্রদত্ত কোনো ফি বা চার্জ ফেরত দেওয়া হবে না।
  • কার্যকরভাবে বাতিলকরণ প্রক্রিয়াটি সহজতর করার জন্য অবিলম্বে কাজ করা এবং সংশ্লিষ্ট অফিসের সাথে সরাসরি যোগাযোগ করা অপরিহার্য।
  • অফিসের কর্মীদের সাথে সহযোগিতা করুন এবং জন্ম নিবন্ধন আবেদন বাতিলের জন্য অনুরোধকৃত আরও তথ্য বা ডকুমেন্টেশন প্রদান করুন।

এ কের পর এক প্রশ্ন কর (FAQs)

কারা জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করতে পারে?

পিতামাতা, অভিভাবক বা অন্য কোন দায়িত্বশীল ব্যক্তি সহ যে কেউ জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করতে পারেন।

জন্ম নিবন্ধনের জন্য কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন?

জন্ম নিবন্ধনের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেশ ভেদে পরিবর্তিত হয়। যাইহোক, কিছু সাধারণ নথি অন্তর্ভুক্ত:

  1. হাসপাতাল বা ক্লিনিক থেকে একটি জন্ম শংসাপত্র যেখানে শিশুর জন্ম হয়েছে
  2. পিতামাতা বা অভিভাবকের জন্য একটি পাসপোর্ট বা অন্যান্য শনাক্তকরণ নথি
  3. বসবাসের প্রমাণ, যেমন একটি ইউটিলিটি বিল বা ভাড়া চুক্তি

আমি কোথায় জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করতে পারি?

জন্ম নিবন্ধনের আবেদন প্রক্রিয়া দেশ ভেদে পরিবর্তিত হয়। যাইহোক, বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, আপনি স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভায় জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করতে পারেন।

জন্ম নিবন্ধনের খরচ কত?

জন্ম নিবন্ধনের খরচ দেশ ভেদে পরিবর্তিত হয়। তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই খরচ তুলনামূলক কম।

জন্ম নিবন্ধন করতে কতক্ষণ লাগে?

জন্ম নিবন্ধনের প্রক্রিয়াকরণের সময় দেশ ভেদে পরিবর্তিত হয়। যাইহোক, বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, প্রক্রিয়াটি কয়েক সপ্তাহ সময় নেয়।

একটি জন্ম নিবন্ধন সুবিধা কি কি?

জন্ম নিবন্ধন করার অনেক সুবিধা রয়েছে, যার মধ্যে রয়েছে:

  1. শিশুটির আইনি পরিচয় থাকবে
  2. শিশু শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা এবং অন্যান্য সামাজিক পরিষেবাগুলি অ্যাক্সেস করতে সক্ষম হবে
  3. শিশুটি আন্তর্জাতিকভাবে ভ্রমণ করতে সক্ষম হবে

আমি যদি আমার সন্তানের জন্ম নিবন্ধন না করি তাহলে কি হবে?

আপনি যদি আপনার সন্তানের জন্ম নিবন্ধন না করেন, তাহলে তারা শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা এবং অন্যান্য সামাজিক পরিষেবা অ্যাক্সেস করতে সক্ষম হবে না। তাদের আন্তর্জাতিক ভ্রমণেও অসুবিধা হতে পারে।

দেরিতে জন্ম নিবন্ধনের পরিণতি কি?

দেরীতে জন্ম নিবন্ধনের ফলাফল দেশ ভেদে পরিবর্তিত হয়। যাইহোক, কিছু ক্ষেত্রে, দেরিতে জন্ম নিবন্ধনের ফলে জরিমানা বা অন্যান্য জরিমানা হতে পারে।

জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করার জন্য কী কী পদক্ষেপ নিতে হয়?

জন্ম নিবন্ধনের আবেদনের সাথে জড়িত পদক্ষেপগুলি দেশ থেকে দেশে পরিবর্তিত হয়। যাইহোক, বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, প্রক্রিয়াটি নিম্নলিখিত পদক্ষেপগুলি অন্তর্ভুক্ত করে:

  • জন্ম নিবন্ধন আবেদন ফর্ম পূরণ করুন
  • প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সরবরাহ করুন
  • আবেদন ফি প্রদান করুন
  • স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভায় আবেদনপত্র এবং নথি জমা দিন

আমি আমার জন্ম নিবন্ধন আবেদন জমা দেওয়ার পরে কি হবে?

আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন আবেদন জমা দেওয়ার পরে, স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভা আপনার আবেদন প্রক্রিয়া করবে। প্রক্রিয়াকরণের সময় পরিবর্তিত হতে পারে, তবে এটি সাধারণত কয়েক সপ্তাহ সময় নেয়। একবার আপনার আবেদন প্রক্রিয়া হয়ে গেলে, আপনাকে একটি জন্ম শংসাপত্র জারি করা হবে।

জন্ম নিবন্ধন সম্পর্কে আমার প্রশ্ন থাকলে কি হবে?

জন্ম নিবন্ধন সম্পর্কে আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে, আপনার স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভার সাথে যোগাযোগ করা উচিত। তারা আপনার প্রশ্নের উত্তর দিতে এবং আবেদন প্রক্রিয়ার সাথে আপনাকে সাহায্য করতে সক্ষম হবে।

জন্ম নিবন্ধন বিভিন্ন ধরনের কি কি?

দুটি প্রধান ধরনের জন্ম নিবন্ধন আছে:

  • স্বেচ্ছায় জন্ম নিবন্ধন: এটি জন্ম নিবন্ধনের সবচেয়ে সাধারণ প্রকার। এটি সন্তানের পিতামাতা বা অভিভাবক দ্বারা করা হয়।
  • বাধ্যতামূলক জন্ম নিবন্ধন: আইন দ্বারা এই ধরনের জন্ম নিবন্ধন প্রয়োজন। এটি সাধারণত হাসপাতাল বা ক্লিনিক দ্বারা করা হয় যেখানে শিশুর জন্ম হয়েছিল।

একটি জন্ম শংসাপত্র এবং একটি জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্রের মধ্যে পার্থক্য কি?

একটি জন্ম শংসাপত্র একটি আইনি দলিল যা একটি সন্তানের জন্ম প্রমাণ করে। এটি সরকার দ্বারা জারি করা হয়। একটি জন্ম নিবন্ধন শংসাপত্র হল একটি নথি যা প্রমাণ করে যে একটি শিশুর জন্ম সরকারের কাছে নিবন্ধিত হয়েছে। এটা কোনো আইনি দলিল নয়।

জন্ম শংসাপত্র পেতে বিভিন্ন উপায় কি কি?

জন্ম শংসাপত্র পাওয়ার বিভিন্ন উপায় রয়েছে। আপনি সাধারণত স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভা থেকে একটি জন্ম শংসাপত্র পেতে পারেন। আপনি শিশুর জন্মের হাসপাতাল বা ক্লিনিক থেকে একটি জন্ম শংসাপত্রও পেতে পারেন।

হারিয়ে যাওয়া বা চুরি যাওয়া জন্ম শংসাপত্র প্রতিস্থাপন করার বিভিন্ন উপায় কী?

আপনি যদি আপনার জন্ম শংসাপত্রটি হারিয়ে ফেলেন বা ভুল জায়গায় রাখেন, আপনি সাধারণত স্থানীয় রেজিস্ট্রি অফিস বা পৌরসভা থেকে একটি প্রতিস্থাপন পেতে পারেন। আপনাকে আপনার পরিচয় এবং নাগরিকত্বের প্রমাণ প্রদান করতে হতে পারে।

Leave a Comment